• অনির্বাণের 'বিবাহ অভিযান' ঘিরে সোশ্যাল মিডিয়ায় উন্মাদনা তুঙ্গে, ফাঁস বিয়ের কার্ড
    হিন্দুস্তান টাইমস, 22 November 2020
  • কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গিয়েছে, আগামী বৃহস্পতিবার টলিউডের অন্যতম হ্যান্ডসাম নায়ক অনির্বাণ ভট্টাচার্যের বিয়ে। মন ভেঙেছে তাঁর মহিলা ভক্তদের। টলিগঞ্জের মোস্ট এলিজেবল ব্যাচেলারের তালিকা থেকে যে অর্নিবাণ নিজের নাম সরিয়ে নিচ্ছেন সেই গুঞ্জন গত বছর থেকেই শোনা যাচ্ছিল, অবশেষে সেই জল্পনায় সিলমোহর। নাট্যদুনিয়ার বন্ধু মধুরিমা গোস্বামীর সঙ্গে চার হাত এক হচ্ছে অনির্বাণের। এই জুটির প্রেম সম্পর্ক বহুদিনের, প্রায় বছর ১২ তো হবেই! টলিউডেও অনির্বাণ-মধুরিমার সম্পর্ক কারুর অজানা নয়, তবে নিজের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে কথা বলতে কোনওদিনই পছন্দ করেন না অনিবার্ণ। এবার ফাঁস হয়ে গেল অনির্বাণ-মধুরিমার বিয়ের কার্ড। আগামী ২৬ নভেম্বর রেজিস্ট্রি বিয়ে করছেন অনির্বাণ, ভেন্যু সল্টলেকের ন্যাশনাল মাইম ইনস্টিটিউট। পরের দিন ২৭ নভেম্বর বিয়ের অনুষ্ঠানের জায়গাতেই রিসেপশনের আয়োজন করা হয়েছে।

    করোনা পরিস্থিতিতে খুব ঘটা করে কোনও অনুষ্ঠান করছেন না অনির্বাণ, কারণ অতিথি সংখ্যা সীমিত রাখতে হবে। তবে ঘরোয়া এই আয়োজনে উপস্থিত থাকবেন সৃজিত-মিথিলা, ব্রাত্য বসুরা।

    নাটকের সূত্রেই আলাপ এই জুটির।‘হাতিবাগান সঙ্ঘারাম’-এ একসঙ্গে বেশ কিছু নাটকে কাজ করেছেন তাঁরা। মধুরিমা পুরোদস্তুর রঙ্গমঞ্চের দুনিয়ার মানুষ। মূকাভিনয় নিয়ে তাঁর বিস্তর পড়াশোনা রয়েছে। অনির্বাণ-মধুরিমা দুজনেই রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যায়ের প্রাক্তনী।মধুরিমার বাবা পদ্মশ্রী সম্মানপ্রাপ্ত মূকাভিনয় শিল্পী নিরঞ্জন গোস্বামী।

    গতে বাঁধা ব্যক্তিত্ব নন অনির্বাণ, মধুরিমাও তাঁর মনের মানুষ। সুতরাং গতে বাঁধা ছকে তাঁদের বিয়েটাও হচ্ছে না। মন্ত্র উচ্চারণ করে না করে তাই রেজিস্ট্রি বিয়ে, বন্ধু আর পরিচিতদের সঙ্গে গান, গল্প, আড্ডা আর খাওয়াদাওয়া করেই নতুন জীবন শুরু করতে চান এই জুটি।

    চলতি বছর ফেব্রুয়ারিতে সৃজিত-মিথিলার বিয়ের রিসেপশনে প্রথমবার একসঙ্গে দেখা গিয়েছিল অনির্বাণ-মধুরিমাকে। না হলে কোনওদিন মিডিয়ার সামনে একসঙ্গে আসেননি এই জুটি। তারপর থেকেই তাঁদের বিয়ের জোর জল্পনা শুরু হয়। অবশেষে পূর্ণতা পাচ্ছে এই প্রেম কাহিনি।
  • Link to News (হিন্দুস্তান টাইমস)