• ভারতের বিশ্বকাপ জয়ের টুর্নামেন্টেই খুনের হুমকি ডুপ্লেসিসকে! শিউরে উঠল ক্রিকেট দুনিয়া
    ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস, 19 May 2021
  • যে বিশ্বকাপে ইতিহাস গড়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ভারত, সেই টুর্নামেন্টেই যত গন্ডগোল। বিশ্বকাপে জাতীয় দলের হারের পর খুনের হুমকি পেয়েছিলেন! হঠাৎ করেই এমন স্বীকারোক্তিতে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে দিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার সুপারস্টার ফাফ ডুপ্লেসিস। উপমহাদেশের ক্রিকেটারদের হুমকি ফোন, বাড়ি আক্রান্ত হওয়া একদমই আশ্চর্যের কিছু নয়। তবে বিদেশেও যে এমন ঘটনা ঘটে। সেটাই এবার সরাসরি জানিয়ে দিলেন ডুপ্লেসিস।

    ২০১১ সালের বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। ঢাকার সেই ম্যাচেই ডুপ্লেসিসের সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝিতে রান আউট হয়ে যান এবি ডিভিলিয়ার্স। শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে সেই ম্যাচে ৪৯ রানে হেরে দক্ষিণ আফ্রিকা ছিটকে যাওয়ার পরেই যত বিপর্যয়!

    ইএসপিএন ক্রিকইনফো-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ডুপ্লেসিস জানিয়েছেন, “ওই ম্যাচের পর হত্যার হুমকি পেয়েছিলাম। সোশ্যাল মিডিয়ার একাধিক প্ল্যাটফর্মে আমাদের হুমকি দেখে আমি এবং আমার স্ত্রী রীতিমত ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে পড়ি। আমাদের পুরোপুরি ব্যক্তিগত স্তরে আক্রমণ করা হচ্ছিল। এতই অপশব্দ প্রয়োগ করা হচ্ছিল, যে তা মুখেও আনতে পারব না।”

    এরপরে তিনি আরো বলেন, “এই ধরণের ঘটনা চারপাশের মানুষদের প্রতি আমাদের আরো অন্তর্মুখী করে তোলে। নিজেদের সঙ্গে বর্ম পরে নিতে বাধ্য হয়েছিলাম। বন্ধুবান্ধবদের বৃত্তটা আরো ছোট করে ফেলি। সেই কারণেই আমাদের ক্যাম্পে সবসময় নিরাপদ পরিবেশ তৈরি করে চাই।”

    আলোচিত সেই ম্যাচে নিউজিল্যান্ড প্রথমে ব্যাটিং করে ড্যানিয়েল ভেট্টোরির নেতৃত্বে স্কোরবোর্ডে ২২১/৮ তুলেছিল। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দক্ষিণ আফ্রিকা মাত্র ১৭২ রানে গুটিয়ে যায়। কেরিয়ারের দশম ওডিআই ম্যাচ খেলতে নেমেছিলেন ডুপ্লেসিস। দলের প্রয়োজনে ব্যাট করতে নেমে প্রোটিয়াজ সুপারস্টার করেন ৩৬। সেই ম্যাচেই নিউজিল্যান্ডের দ্বাদশ ব্যক্তি কাইল মিলসের সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়ে ডুপ্লেসিসের ম্যাচ ফি-র ৫০ শতাংশ জরিমানাও হয়।

    কুখ্যাত সেই ম্যাচের পর ডুপ্লেসিস জাতীয় দলের হয়ে ১৪৩টি ওডিআই, ৬৯টি টেস্ট এবং ৫০টি টি২০ ম্যাচে অংশ নিয়েছেন। কিছুদিন আগেই ডুপ্লেসিসকে দেখা গিয়েছিল বন্ধ হয়ে যাওয়া আইপিএলে সিএসকের জার্সিতে খেলতে। করোনা অতিমারিতে টুর্নামেন্ট বন্ধ হওয়ার আগে দুরন্ত ছন্দে ছিলেন তিনি। ৭ ম্যাচে ৩২০ রান করে সেরা রান সংগ্রাহক হওয়ার দাবিদার ছিলেন।
  • Link to News (ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস)