• ?শ্রদ্ধার খুনি জলদিই কড়া সাজা পাবে?, আশ্বাস অমিত শাহর
    প্রতিদিন | ২৫ নভেম্বর ২০২২
  • সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মঙ্গলবারই দিল্লির (Delhi) নিম্ন আদালতে শ্রদ্ধা ওয়ালকারকে (Shraddha Walkar) খুনের কথা স্বীকার করেছে আফতাব আমিন পুণাওয়ালা (Aftab Amin Poonawala)। এই পরিস্থিতিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানিয়ে দিলেন, দিল্লি পুলিশ ও আইনি ব্যবস্থার সাহায্য়ে কড়া সাজা পাবে অভিযুক্ত।

    বৃহস্পতিবার এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের আলোচনাসভায় যোগ দিয়েছিলেন শাহ। সেখানেই তাঁকে বলতে শোনা যায়, 'আমি পুরো বিষয়টির দিকেই নজর রেখেছি। দেশের মানুষকে বলতে চাই, আইন ও আদালতের মাধ্যমে দিল্লি পুলিশ ও বিচার ব্যবস্থা ন্যূনতম সময়ের মধ্যেই কড়া সাজা দেবে অভিযুক্তকে।' তবে এরই পাশাপাশি দিল্লি ও মুম্বই পুলিশের মধ্যে সমঝোতার অভাবকে কাঠগড়ায় তুলে মহারাষ্ট্র প্রশাসনকেও একহাত নিলেন তিনি।

    ২০২০ সালে মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) ভেসাই শহরতলিতে একটি ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে থাকতেন শ্রদ্ধা-আফতাব। ওই বছর ২৩ নভেম্বরে পুলিশকে লেখা চিঠিতে শ্রদ্ধা অভিযোগ করেন, আফতাব তাঁকে মারধর করে। আফতাবের পরিবারও এই বিষয়ে জানে। খুনের তদন্তে নেমে ওই চিঠির কথা জানতে পেরেছে দিল্লি পুলিশ। যেখানে শ্রদ্ধা জানিয়েছিলেন, আফতাব তাঁকে কেটে টুকরো করে ফেলবে বলে হুমকি দিয়েছিল। শ্রদ্ধার অভিযোগ পেয়ে ভাসাই পুলিশ কী ব্যবস্থা নিয়েছিল তাও খতিয়ে দেখছেন দিল্লির তদন্তকারীরা।

    এদিন সেই প্রসঙ্গ তুলেই মহারাষ্ট্র সরকারকে কাঠগড়ায় তুলেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। রীতিমতো কড়া ভাষায় আক্রমণ করতে গিয়ে মনে করিয়ে দিয়েছেন, সেই সময় ওখানে বিজেপির প্রশাসন ছিল না। তাঁর কথায়, 'শ্রদ্ধা জানিয়েছিলেন, তাঁকে টুকরো করে ফেলবেন তাঁর প্রেমিক। তবুও কোনও পদক্ষেপ করা হয়নি। এর দায় যাঁর, তাঁর বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করা হবে।'

    এদিকে আফতাবের বাড়ি থেকে পাঁচটি ছুরি উদ্ধার করেছে দিল্লি পুলিশ। প্রতিটি ছুরিই ৫ থেকে ৬ ইঞ্চি লম্বা। মনে করা হচ্ছে, ওই ছুরিগুলির সাহায্য়েই শ্রদ্ধার দেহ টুকরো করা হয়। ফরেনসিক পরীক্ষার জন্য ছুরিগুলি পাঠানো হয়েছিল।
  • Link to this news (প্রতিদিন)