• 'টাওয়ার বসালে মিলবে প্রচুর টাকা, দিতে হবে ফি', ভুয়ো কল সেন্টার থেকে ধৃত ১০
    হিন্দুস্তান টাইমস | ২৫ নভেম্বর ২০২১
  • ‌মোবাইল টাওয়ার বসানোর নাম করে টেকনোসিটি থানা এলাকায় খোলা হয়েছিল কল সেন্টার। আর সেই কল সেন্টার থেকে ফোন করে চলত আর্থিক প্রতারণা। এই ঘটনায় তদন্তে নেমে ১০ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

    সিআইডি সূত্রে খবর, বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেট এলাকার টেকনোসিটি থানা এলাকায় একটি কল সেন্টার খোলা হয়েছিল। এখানে ল্যান্ড ফোন থেকে বহু মানুষকে মোবাইল টাওয়ারের নাম করে ফোন করা হত। ফোন করে বলা হত, টাওয়ার বসালে মোটা টাকা পাওয়া যাবে। সেই সঙ্গে প্রসেসিং ফি বাবদ কিছু টাকা চাওয়া হত। সেই মতো দফায় দফায় টাকা নিয়ে ওই ব্যক্তির সঙ্গে যোগাযোগ রাখা সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেওয়া হত। সম্প্রতি এই রকমই একটি ঘটনা ঘটে রাজ্য পুলিশের এক পদস্থ কর্তার আত্মীয়ের সঙ্গে। এরপরই ঘটনার তদন্তে নামে সিআইডি। তদন্তে নেমে সিআইডি আধিকারিকরা কল সেন্টারের খোঁজ পান।

    কিছুদিন আগে সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ সেক্টর ফাইভে দুটি ভুয়ো কল সেন্টারের হদিশ পায়। উদ্ধার করা হয় মোবাইল ফোন, ল্যাপটপ, বেশ কিছু ডিভাইস-সহ মোটা টাকা। সেই ঘটনাতেও ১০ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে। পাশাপাশি নিউটাউনের একটি কল সেন্টারে হানা দিয়ে প্রতারণা চক্রের মূল পাণ্ডা কমলেশ কুমার আর্য-সহ ৬ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সেই সঙ্গে পার্ক স্ট্রিটেও বিশ্ব বিখ্যাত সংস্থার নাম করে ভুয়ো কল সেন্টার চালানোর্ অভিযোগ উঠেছিল। সেই ঘটনাতেও ১১ জনকে গ্রেফতার করা হয়।
  • Link to this news (হিন্দুস্তান টাইমস)