• SAFF CUP: Sunil Chettri-র জোড়া গোলে Pele-কে টপকে  ফাইনালে ভারত, সামনে নেপাল
    ২৪ ঘন্টা | ১৪ অক্টোবর ২০২১
  • নিজস্ব প্রতিবেদন: সাফ ফাইনালে (SAFF Cup) উঠতে গেলে বুধবার মালদ্বীপকে হারাতেই হত। অন্যদিকে ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে অনেক সুবিধাজনক জায়গায় ছিল মালদ্বীপ। নিজেদের ঘরের মাঠে সুনীল ছেত্রীদের (Sunil Chettri) বিরুদ্ধে শুধু ড্র করলেই ফাইনালে পৌঁছে যেতেন আলি আসফাকরা। এই পরিস্থিতিতে জ্বলে উঠল ইগর স্টিম্যাচের (Igor Stimac) দল। ফলে আগামী ১৬ অক্টোবর নেপালের বিরুদ্ধে ফাইনাল খেলতে নামবে টিম ইন্ডিয়া। সুনীল ছেত্রীর জোড়া গোল এবং মনবীর সিংয়ের গোলে মালদ্বীপকে ৩-১ ব্যবধানে হারিয়ে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠল টিম ইন্ডিয়া। শুধু তাই নয়, আন্তর্জাতিক গোলের ক্ষেত্রে কিংবদন্তি পেলেকে (Pele) টপকে গেলেন সুনীল।

    এবারের সাফ কাপের শুরুটা খুবই খারাপ হয়েছিল ভারতীয় দলের। প্রথম ম্যাচে এগিয়ে থেকেও দশ জনের বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ড্র। এরপর ফিফা ক্রমতালিকায় অনেকটাই পিছিয়ে থাকা শ্রীলঙ্কার সঙ্গে ড্র। শেষ ম্যাচে নেপালের বিরুদ্ধে মাত্র ১-০ গোলে জয়। ফলে অনেকেই নিজেদের ঘরের মাঠে মালদ্বীপের বিরুদ্ধে সুনীলদের জয় নিয়ে সন্দিহান ছিলেন। কারণ গোটা টুর্নামেন্টে এই ম্যাচের আগে পর্যন্ত আর দু’টি গোলই করেছিল ভারত। আর দুটিই এসেছিল সুনীল ছেত্রীর কাছ থেকে।

    কিন্তু এদিন শুরু থেকেই অনেকটাই আক্রমণাত্মক খেলা শুরু করেছিল ইগর স্টিম্যাচের দল। যদিও পালটা লড়াই করছিল মালদ্বীপ। ঘরের মাঠে স্টেডিয়াম ভরতি দর্শকদের সমর্থনও ছিল আলি আসফাকদের সঙ্গে। যদিও ম্যাচে প্রথমে এগিয়ে গিয়েছিল ভারতই। ৩৩ মিনিটে কাউন্টার অ্যাটাকে দুরন্ত গোল করে ভারতকে এগিয়ে দেন মনবীর। কিন্তু সেই লিড বেশিক্ষণ স্থায়ী ছিল না। ৪৪ মিনিটে পেনাল্টি পায় মালদ্বীপ। আর সেখান থেকে বিরতির আগেই দলকে সমতায় ফেরান আলি আসফাক। ফলে প্রথমার্ধের খেলার পর স্কোর ছিল ১-১।

    দ্বিতীয়ার্ধে অবশ্য গোলের জন্য ঝাঁপায় ভারতীয় দল। শেষপর্যন্ত ৬২ মিনিটে গোল করে দলকে ফের এগিয়ে দেন সুনীল ছেত্রী। দেশের জার্সিতে গোল করার বিষয়ে নেপালের বিরুদ্ধেই ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি পেলেকে ছুঁয়েছিলেন। আর এদিন প্রথম গোলটি করেই পেলেকে টপকে গেলেন ভারতীয় ফুটবলের বর্তমান আইকন। আপাতত তিনি ফুটবল বিশ্বে আন্তর্জাতিক গোলের ক্ষেত্রে ষষ্ঠ স্থানে রয়েছেন। এরপর ৭১ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে ভেসে আসা বলে দুরন্ত হেড করে ভারতের জয় নিশ্চিত করেন সেই সুনীলই। এরপর অবশ্য কোনও দলই আর কোনও গোল করতে পারেনি। তবে ম্যাচের শেষদিকে, দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে লাল কার্ড দেখেন শুভাশিস বোস। ফলে কিছুক্ষণ দশজনেও খেলে ভারতীয় দল। যদিও তাতে তাঁদের জয় আটকায়নি। শেষপর্যন্ত ৩-১ ব্যবধানে ম্যাচে জিতে সাফ কাপের ফাইনালে উঠল ইগর স্টিম্যাচের ছেলেরা। যেখানে তাঁদের মুখোমুখি প্রথমবার সাফ কাপের ফাইনালে ওঠা নেপাল।
  • Link to this news (২৪ ঘন্টা)