• Covid-19: কোভিড চিকিৎসায় ২০২১-এর ভুলই হয়ে চলেছে ২০২২-এ! কেন্দ্র, মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনকে চিঠি 
    আজকাল | ১৫ জানুয়ারি ২০২২
  • আজকাল ওয়েবডেস্ক: ২০২১ সালের ভুলগুলোই ফের করা হচ্ছে ২০২২-এ! কীসের ভুল? দেশে কোভিড রোগীদের যেভাবে চিকিৎসা করা হচ্ছে ভুল হচ্ছে তাতেই।

    ভারত, কানাডা এবং আমেরিকার ৩২ জন চিকিৎসক এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ এক খোলা চিঠি পাঠিয়েছেন দেশের কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকার, ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন এবং দেশের চিকিৎসকদের। সেই সব ওষুধ এবং ডায়াগনস্টিকস বাতিল করতে অনুরোধ করা হয়েছে, কোভিড-১৯ চিকিৎসায় যেগুলো আদৌ সাহায্য করে এমন প্রমাণ নেই। 

    চিঠিতে লেখা হয়েছে, ‘নোভেল রোগের প্রাদুর্ভাব নিয়ে এখনও অনিশ্চয়তা থাকলেও কোভিড-১৯ এর চিকিৎসা নিয়ে এখন উচ্চমানের প্রমাণিত বৈজ্ঞানিক নির্দেশাবলি বেরিয়েছে। প্রমাণ থাকা সত্ত্বেও এবং ডেল্টার ওয়েভে প্রচুর মৃত্যু হলেও আমরা দেখতে পারছি যে ২০২১-এর ভুলগুলোই ২০২২-এ করা হচ্ছে।’ কী ধরনের ভুলের কথা বলা হচ্ছে?

    চিকিৎসকদল জানাচ্ছেন, কোভিড রোগীদের ভিটামিন কম্বিনেশন, অ্যাজিথ্রোমাইসিন, ডক্সিসিসিলিন, হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন, ফ্যাভিপিরাভির এবং ইভারমেকটিন দেওয়া হচ্ছে। কিন্তু এই সব ওষুধ যে কোভিডে-১৯ চিকিৎসায় কার্যকর তার প্রমাণ রয়েছে খুব সামান্যই। চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘এই সব ড্রাগের অমিত ব্যবহার ক্ষতিই করেছে, তা ডেল্টা ওয়েভের সময়েই দেখা গেছে। ভারতে মিউকরমাইকোসিসি এবং ব্রাজিলে অ্যাসপারগিলোসিস ছত্রাকের প্রাদুর্ভাব হওয়ার নেপথ্যে ছিল ভুলভাল ওষুধের যথেচ্ছ ব্যবহার।’ 

    এই চিকিৎসকরা এও বলছেন, উপসর্গহীন এবং মৃদু উপসর্গের কেসে অপ্রয়োজনীয় সিটি স্ক্যান, ডি-ডাইমার এবং IL-6 না করাই উচিত। এমনকী যৈক্তিকতা না থাকলে হাসপাতালে ভর্তি করানোরও দরকার নেই। এতে রোগীর পরিবার যে বড়সড় আর্থিক বোঝার চাপে পড়বেন তাই নয়, আরও হাজার হাজার মানুষ ঝুঁকির মুখে পড়বেন। যারা নন-কোভিড রোগী এমার্জেন্সির সময় তাঁরা হাসপাতালে জায়গা পাবেন না।           

     
  • Link to this news (আজকাল)