• UP Elections: অযোধ্যা নয়, 'ঘরের মাঠ' গোরক্ষপুর থেকেই উত্তরপ্রদেশ বিধানসভায় লড়বেন যোগী
    প্রতিদিন | ১৫ জানুয়ারি ২০২২
  • সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনে বড়সড় চমক। প্রথমবার বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ (Yogi Adityanath)। যাবতীয় জল্পনার অবসান ঘটিয়ে শনিবার ঘোষণা করে দিল বিজেপি। তবে, অযোধ্যা নয়, নিজের ঘরের মাঠ গোরক্ষপুর থেকেই নির্বাচনে লড়বেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী। শনিবার প্রথম দুদফার মোট ১০৫ আসনের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেছে বিজেপি। সেই তালিকায় সবচেয়ে বড় চমক যোগীই।

    এই মুহূর্তে মুখ্যমন্ত্রী হলেও উত্তরপ্রদেশ বিধানসভার সদস্য নন যোগী। তিনি নির্বাচিত হয়েছেন বিধান পরিষদে। এর আগে বার দুই সাংসদ নির্বাচিত হলেও বিধানসভা (UP Assembly Elections) ভোটে লড়েননি। এই প্রথমবার উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা ভোটে সরাসরি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তিনি। আসলে, এবারের ভোটে যোগীর মূল যে তিন প্রতিদ্বন্দ্বী সেই অখিলেশ যাদব, মায়াবতী বা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী (Priyanka Gandhi) কেউই নির্বাচনে লড়বেন না। তাই যোগী বিধানসভা ভোটে লড়ে সামনে থেকে দলকে নেতৃত্ব দিতে চান।

    এতদিন শোনা যাচ্ছিল হিন্দুত্ববাদী ভাবমূর্তির সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে যোগীকে অযোধ্যা থেকে প্রার্থী করতে পারে বিজেপি। অযোধ্যার বিজেপি বিধায়ক বেদপ্রকাশ গুপ্ত যোগীর জন্য নিজের আসন খালি করতেও রাজি ছিলেন। কিন্তু শেষপর্যন্ত অযোধ্যা নয়, গোরক্ষপুর থেকেই ভোটে দাঁড়াচ্ছেন যোগী। বিধানসভায় না লড়লেও এর আগে বার দুই গোরক্ষপুরেরই লোকসভা কেন্দ্র থেকে সাংসদ হয়েছেন তিনি। তাছাড়া গোরক্ষনাথ মন্দিরের প্রধান পুরোহিতও তিনিই। স্বাভাবিকভাবেই এই গোরক্ষপুর যোগীর জন্য অপেক্ষাকৃত 'সেফ সিট'। অযোধ্যা বা মথুরায় ভোটে লড়তে গেলে তুলনামূলক লড়াইটা কঠিন হত যোগীর জন্য। সেক্ষেত্রে নিজের কেন্দ্রে আটকে যাওয়ার সম্ভাবনা ছিল যোগীর। কিন্তু যোগী নিজের কেন্দ্রে আটকে গেলে প্রচারে সমস্যায় পড়ত বিজেপি।

    শনিবার বিজেপি উত্তরপ্রদেশের প্রথম দফার ৫৮ আসনের মধ্যে ৫৭ আসনের প্রার্থী ঘোষণা করে দিয়েছে। দ্বিতীয় দফার ৫৫ আসনের মধ্যে ৩৮ আসনের প্রার্থী তালিকাও ঘোষণা করা হয়েছে। পরবর্তী দফাগুলির প্রার্থী পরে ঘোষণা করা হবে।
  • Link to this news (প্রতিদিন)