• বিয়েবাড়ি, মেলায় শর্তাধীন ছাড় দিয়ে রাজ্যে ফের বাড়ল বিধিনিষেধের মেয়াদ
    এই সময় | ১৫ জানুয়ারি ২০২২
  • এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: রাজ্যে ফের বাড়ল বিধিনিষেধের মেয়াদ। আরও ১৫ দিন অর্থাৎ আগামী ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত রাজ্যে বহাল থাকবে করোনার বিধিনিষেধ। তবে বেশ কিছু ক্ষেত্রে শিথিলতা এনেছে নবান্ন। তালিকায় প্রথমেই রয়েছে বিয়েবাড়ির অনুষ্ঠানের উপস্থিতির সংখ্যা। এবার থেকে ২০০ জন অতিথি নিয়ে বিয়েবাড়ির আয়োজন করা যাবে। এছাড়াও খোলা প্রাঙ্গণে মেলার আয়োজন করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। যদিও বহাল থাকছে কড়া নাইট কার্ফু। বন্ধ থাকছে স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়। রেস্তোরাঁ-পানশালায়-শপিং মলে বহাল থাকছে ৫০ শতাংশ উপস্থিতির নির্দেশিকা। সিনেমা হলেও ৫০ শতাংশ দর্শক প্রবেশের অনুমতি রয়েছে রাজ্যে।

    এর আগে শর্তসাপেক্ষে সেলুন এবং বিউটি পার্লার খোলা রাখার অনুমতি দিয়েছে রাজ্য়। এই মর্মে নবান্নের তরফে একটি নির্দেশিকা জারি করা হয়েছিল। যেখানে বলা হয়েছে, ৫০ শতাংশ গ্রাহকের উপস্থিতি নিয়ে খোলা যাবে সেলুন এবং বিউটি পার্লার। তবে এ ক্ষেত্রে গ্রাহক এবং পার্লার কর্মী উভয়ের ভ্যাকসিনের দু'টি করে ডোজ সম্পন্ন হতে হবে। এই শর্ত আরোপ করেই প্রতিদিন রাত ১০টা পর্যন্ত দোকানগুলি খোলার অনুমতি দিয়েছে প্রশাসন। এর আগে রাজ্যে নতুন করে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করার পর পার্লার ও সেলুনগুলিকে সম্পূর্ণ বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল।

    উল্লেখ্য, গত ৩ জানুয়ারি থেকে রাজ্যে জারি হয়েছে কঠোর বিধিনিষেধ। ১৫ জানুয়ারি পর্য়ন্ত প্রাথমিকভাবে তা বহাল রাখা হয়েছিল। এবার তা আরও ১৫ দিন বাড়িয়ে ৩১ জানুয়ারি পর্য়ন্ত করা হয়েছে। তবে তার মধ্যেও চালু রয়েছে সমস্ত এমারজেন্সি পরিষেবা। চালু থাকছে বিভিন্ন হোম ডেলিভারি পরিষেবা।

    রাজ্যের বিধিনিষেধ একনজরে-

    বন্ধ স্কুল-কলেজ সহ সমস্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

    ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে চলবে লোকাল ট্রেন পরিষেবা

    রাত ১০টার পর বন্ধ হয়ে যাবে লোকাল

    বন্ধ সমস্ত সুইমিং পুল, জিম

    বন্ধ চিড়িয়াখানা থেকে সমস্ত পর্যটন স্থল

    সমস্ত সরকারি-বেসরকারি অফিসে ৫০ শতাংশ কর্মী বাড়ি থেকে কাজ করছেন

    ৫০ শতাংশ যাত্রী নিয়ে চলছে মেট্রো

    দূরপাল্লার কোনও ট্রেন বন্ধ হচ্ছে না

    বাজার, শপিং মলে ৫০ শতাংশ মানুষ এক সময়ে ঢুকতে পারবেন

    রাত ১০টা পর্যন্ত ৫০ শতাংশ দর্শক নিয়ে চালু থাকবে সিনেমা, থিয়েটার

    রাত ১০টা পর্যন্ত ৫০ শতাংশ গ্রাহক নিয়ে চলবে রেস্তোরাঁ-বার

    মিটিং ও জমায়েতে সর্বোচ্চ ২০০ অথবা হলের জায়গার অর্ধেক মানুষ থাকতে পারবেন

    রাত্রি ১০ থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত যানবাহন চলাচল সহ সমস্ত গতিবিধি বন্ধ ।

    রাত ১০টার পর কোনও অনুষ্ঠান কড়া যাবে না

    শবযাত্রায় সর্বোচ্চ ২০ জন থাকতে পারবেন
  • Link to this news (এই সময়)