• Hardik Patel: হার্দিক কি এবার BJP-তে? জোর জল্পনা
    এই সময় | ১৮ মে ২০২২
  • গুজরাট বিধানসভা নির্বাচনের মুখে কংগ্রেস শিবিরে কার্যত ধাক্কা দিয়েছেন পতিদার নেতা হার্দিক প্যাটেল। বুধবারই কংগ্রেসের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করার কথা ঘোষণা করেছেন গুজরাটের এই নেতা। ইস্তফার কথা টুইট করে জানিয়েছেন হার্দিক। পতিদার নেতার কংগ্রেস ত্যাগের পরই তাঁর BJP যোগের জল্পনা নয়া মাত্রা পেয়েছে। তাহলে কি এবার পদ্ম শিবিরে সামিল হচ্ছেন হার্দিক?

    এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, গত ২ মাসেরও বেশি সময় ধরে BJP নেতৃত্বের সঙ্গে যোগাযোগ রয়েছে হার্দিকের। এক সপ্তাহের মধ্যেই বিজেপিতে যোগ দিতে পারেন পতিদার নেতা। উল্লেখ্য, জল্পনা বাড়িয়ে কয়েকদিন আগেই টুইটার প্রোফাইল থেকে কংগ্রেসের নাম সরিয়ে ফেলেছিলেন এই পতিদার নেতা। টুইটারে বায়ো বদল ঘিরে জোর চর্চা শুরু হয় গুজরাট রাজনীতিতে। শুধু টুইটার নয়, হোয়াটসঅ্যাপ ও টেলিগ্রাম অ্যাকাউন্ট থেকেও দলের নাম সরিয়ে ফেলেন পতিদার নেতা।

    এর আগে হোয়াটসঅ্যাপ প্রোফাইল ছবিতে হার্দিকের গলায় গেরুয়া উত্তরীয় দেখা গিয়েছিল। কংগ্রেসের প্রতীকের ছবি সরিয়ে গেরুয়া উত্তরীয় গলায় হার্দিকের ছবি সামনে আসতেই তাঁর BJP যোগের জল্পনা ছড়ায়। পদ্ম শিবিরের প্রশংসাও শোনা গিয়েছে হার্দিক প্যাটেলের গলায়। এই প্রসঙ্গে তিনি বলেছিলেন, ''আমাদের এটা মানতেই হবে যে, সম্প্রতি BJP যে রাজনৈতিক সিদ্ধান্তগুলো নিয়েছে, তা দেখে বলা যায় যে, তারা খুব ভালো রাজনৈতিক সিদ্ধান্ত নিতে পারে...যদি কংগ্রেস নিজেকে আরও শক্তিশালী করতে চায়, তাহলে রাজনৈতিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার বিষয়টিতে আরও জোর দেওয়া উচিত।''

    কংগ্রেস-ত্যাগের পর টুইটারে এদিন হার্দিক লিখেছেন, ''কংগ্রেস থেকে আজ ইস্তফা দিলাম। আমি নিশ্চিত, আমার এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাবেন আমার সতীর্থ ও গুজরাটের মানুষ। আমার বিশ্বাস, এই পদক্ষেপর পর গুজরাটের ভবিষ্যতের জন্য ইতিবাচক কাজ করতে পারব।''

    একাধিক ইস্যুতে কংগ্রেস নেতৃত্বের উপর ক্ষোভ উগরে দেন হার্দিক। তিনি বলেছেন,, ''কংগ্রেসে নরেশ প্যাটেলের অন্তর্ভুক্তি নিয়ে যে ধরনের কথাবার্তা চলছে, তাতে গোটা সম্প্রদায়কে অপমানিত করা হচ্ছে। প্রায় দু'মাস ধরে এসব হচ্ছে। কেন এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়া হল না? নরেশ প্যাটেলকে নিয়ে কংগ্রেসের হাই কমান্ড ও স্থানীয় নেতৃত্বর দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত''। ' পতিদার সংরক্ষণ নিয়ে যে আন্দোলন হয়েছে তাতে ২০১৭ সালে বিধানসভা নির্বাচনে আখেরে লাভ হয়েছে কংগ্রেসের, এমনটাই দাবি করেছেন হার্দিক। এ নিয়ে পতিদার নেতা বলেন, ''এরপর কী হল?২০১৭ সালের পর কংগ্রেসের অনেকেরই মনে হয়ে যে, হার্দিককে যথাযথ ভাবে কাজে লাগানো হয়নি...।'' হার্দিক প্যাটেল এও বলেছিলেন, '' অনেকে রয়েছেন, যাঁরা চান হার্দিক কংগ্রেস ছাড়ুক। তাঁরা আমার মনোবল ভাঙতে চান।'
  • Link to this news (এই সময়)