• Karnataka: ড্রেনের মধ্যে ভেসে যাচ্ছে ৭ নবজাতকের দেহ! বোতল খুলে আঁতকে উঠল গ্রামবাবাসী
    এই সময় | ২৫ জুন ২০২২
  • গর্ভপাত এখন আর সাংবিধানিক অধিকার নয় বলে শুক্রবারই জানিয়েছে মার্কিন সুপ্রিম কোর্ট (US Supreme Court)। ইতিমধ্যেই এই রায় নিয়ে বিশ্বজুড়ে শুরু হয়ে গিয়েছে জোর তোলপাড়। রায় দেওয়ার ২৪ ঘন্টা কাটতে না কাটতেই একটি হৃদয়বিদারক ঘটনার সাক্ষী থাকল কর্ণাটকের (Karnataka) বেলাগাভি। ওই গ্রামের একটি ড্রেন দিয়ে হঠাৎ ভেসে যেতে দেখা যায় একটি বোতল। বোতল খুলতেই রীতিমতো আঁতকে ওঠেন গ্রামবাসীরা। আসলে আসলে আগেভাগেই সন্দেহ হয়েছিল গ্রামবাসীদের, কিন্তু সামনে যেতেই এক নির্দয় দৃশ্য চোখে পড়ে তাদের। বোতলের ভিতরে থেকে উদ্ধার হয় সাতটি নবজাতকের দেহ।

    স্থানীয় পুলিশ সূত্রে খবর, কর্ণাটকের বেলাগাভি জেলায় মুদালাগি গ্রাম থেকে সাতটি ভ্রূণ উদ্ধার করা হয়েছে। জেলা স্বাস্থ্য দফতরকে পুরো বিষয়টি জানানো হয়। শিগগিরিই ঘটনার তদন্তে নামা হবে। স্বাস্থ্যআধিকারিক মহেশ কনি এই প্রসঙ্গে জানিয়েছেন ভ্রূণগুলির বয়স ৫ মাস। ভ্রূনের লিঙ্গও সনাক্ত করা হয়েছে বলে জানান তিনি। যেটা হত্যারই সামিল বলে মনে করছেন স্বাস্থ্য আধিকারিক। বোতলের ভিতর থেকে উদ্ধার হওয়া ভ্রূণগুলিকে প্রথমে একটি হাসপাতালে আনা হয়। সেখান থেকে সেগুলিকে নিয়ে যাওয়া হয় পরীক্ষার জন্য।

    এদিকে, পুলিশের প্রাথমিক অনুমান চুপিসারে স্থানীয় হাসপাতালে বা ক্লিনিকে বেআইনিভাবে গর্ভপাত করা হয়। লিঙ্গ নির্ধারণের পরেই সেগুলি বোতলে ভরে ড্রেনে ফেলে দেওয়া হয়েছিল। যেখান থেকে ভ্রূণগুলি উদ্ধার হয়েছে, তদন্তে নেমে আশপাশের হাসাপাতাল ও ক্লিনিকগুলিকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করা হয়েছে। স্থানীয় বাসিন্দাদেরও জিজ্ঞাসাবাদের সিদ্ধান্ত নিয়েছে পুলিশ।

    নবজাতকের সাত টি ভ্রূণ উদ্ধারের ঘটনায় এলাকায় তৈরি হয়েছে জোর জল্পনা। চোখ এড়িয়ে ব্যস্ত রাস্তার ধারে জলনিকাশি নালায় কী করে ভ্রূনগুলি এল, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন কেউ কেউ। ২০২১ সালে গর্ভপাত আইনে পরিবর্তন আনে কেন্দ্র। কোন বিশেষ আইনি কারণ ছাড়া গর্ভপাত বেআইনি বলে ঘোষণা করা হয়। কিন্তু কর্ণাটকের ঘটনায় মার্কিন মুলুকের মতো ভারতেও গর্ভপাত বেআইনি করার পক্ষে উঠেছে জোর সওয়াল।

    এদিকে, এক কলমের খোঁচাতেই কয়েক যুগ ধরে চলে আসা গর্ভপাতের অধিকার শুক্রবার হারিয়েছেন মার্কিন মহিলারা। ৫০ বছরের পুরনো গর্ভপাতের সাংবিধানিক অধিকার কেড়ে নেয় মার্কিন সুপ্রিম কোর্ট। বিচারপতি স্যামুয়েল আলিটোর নেতৃত্বাধীন শীর্ষ আদালতের রক্ষণশীল বিচারপতিরা গর্ভপাতের সাংবিধানিক অধিকারকে রদ করতে গিয়ে বলেছেন, ‘১৯৭৩ সালের মহিলাদের গর্ভপাতের অধিকার দেওয়াটা ছিল বড় ভুল।’ ১৯৭৩ সালের রো বনাম ওয়েডের মামলায় দেশে গর্ভপাতকে বৈধ হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছিল মার্কিন সুপ্রিম কোর্ট। গত পঞ্চাশ বছর ধরে ওই রায়ের সুযোগ নিয়েই ইচ্ছেমতো গর্ভপাত করাতে পারতেন মার্কিন মহিলারা। মার্কিন আদালতের রায়ের কয়েক ঘণ্টা কাটতে না কাটতে, কর্নাটকের ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই তৈরি হয়েছে আলোড়ন।
  • Link to this news (এই সময়)