• দীঘিতে নৌকা উলটে গিয়ে তলিয়ে গেল দুই কিশোর
    এই সময় | ২৬ জুন ২০২২
  • দীঘিতে নৌকায় চেপে দল বেঁধে বেড়াতে গিয়ে বিপত্তি। নৌকা ডুবে গিয়ে তলিয়ে গেল দুই কিশোর। ঘটনাকে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে উত্তর দিনাজপুর (North Dinajpur ) জেলার করণদীঘির করণ রাজার দীঘিতে। দীর্ঘক্ষণ তল্লাশি চালিয়ে একজনের দেহ উদ্ধার হলেও, অপর এক কিশোরের খোঁজে তল্লাশি জারি রয়েছে৷ শেষ পাওয়া খবর পর্যন্ত, তার কোনও হদিশ মেলেনি। এদিকে, মৃত কিশোরে বাড়িতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে৷ কান্নায় ভেঙে পড়েছেন তাঁর বাড়ির লোকজন৷

    পুলিশ জানায়, করণদীঘির (Karandighi) করণ রাজার দীঘিতে নৌকায় করে বেড়াতে গিয় তলিয়ে যাওয়া দুই কিশোরের নাম শিবা রবিদাস ও অমর সিংহ। দুজনেই কামারতোড় এলাকার বাসিন্দা৷ যে নৌকায় এই দুই কিশোর ছিল, সেই নৌকার আরও ৭ জন যাত্রী সাঁতরে পারে এসেছেন। এই দুই কিশোর আর আসতে পারেনি। পরে এদের মধ্যে একজনের দেহ উদ্ধার হলেও আরেকজনের হদিশ মেলেনি। তল্লাশি জারি রয়েছে।

    স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, করণ রাজার সুবিশাল দীঘিতে মাঝে মধ্যে অনেকেই স্নান করতে গিয়ে নৌকায় চেপে ভ্রমণ করেন। সেই মতো শনিবার দুপুরে প্রায় ন’জন কিশোরের একটি দল নৌকায় চেপে মাঝ দীঘিতে পৌঁছয়৷ এরপরই ঘটে দুর্ঘটনাটি। টাল সামলাতে না পেরে ডুবে যায় নৌকাটি। যার ফলে বাকিরা সাঁতরে পারে উঠতে সক্ষম হলেও দীঘির গভীরে তলিয়ে যায় দুই কিশোর৷ তারা সাঁতরে উঠে আসতে পারেনি৷

    এই ঘটনাকে ঘিরে ব্যাপক শোরগোল পড়ে যায় এলাকায়। প্রাথমিকভাবে স্থানীয়রাই নিখোঁজ কিশোরদের খোঁজে তল্লাশি শুরু করে। খবর দেওয়া হয় পুলিশে৷ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। উদ্ধারকাজও শুরু হয়। ঘটনার পর প্রায় পাঁচ ঘণ্টা বাদে দিঘিতে তল্লাশি অভিযানে নামে বিপর্যয় মোকাবিলা দল। দীর্ঘক্ষণ স্পিডবোটে করে তল্লাশি চালানো হয়। শেষমেশ সন্ধেবেলা শিবা রবিদাসের দেহ উদ্ধার হয়। অপরজন অর্থাৎ অমর সিংহের খোঁজে তল্লাশি জারি রয়েছে। শিবার দেহ উদ্ধার হতেই কান্নায় ভেঙে পড়েন পরিবারের লোকেরা। শিবার বাড়িতে এখন শোকের ছায়া৷ শিবার মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

    এই ঘটনায় অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ৷ তবে বিপজ্জনকভাবে একসঙ্গে এতজনকে নিয়ে একটি নৌকা কেন দিঘিতে গেল, তা নিয়ে তদন্ত করছে পুলিশ৷ নৌকার মাঝিকেও জিজ্রাসাবাদা করা হবে বলে পুলিশ সূত্রে খবর৷ এত সুবিশাল একটি দিঘিতে ৯ জনই বা কেন উঠল, সে বিষয়টিও দেখছে পুলিশ৷ তলিয়ে যাওয়া দুই কিশোর সাঁতার জানত কিনা, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে৷ যদি তারা সাঁতার না জেনে থাকে, তাহলে কেন তারা এতটা ঝুঁকি নিল, সে প্রশ্নও উঠছে৷ তদন্তে নেমে পুলিশ সাঁতরে পারে উঠে আসা কিশোরদের সঙ্গেও কথা বলে অনেক কিছু জানার চেষ্টা করছে৷
  • Link to this news (এই সময়)